যাদব দত্ত-র কবিতা

fail

সাহসের ডাক

এই সাহসের ডাক আর দুধের বল
একটা ঘোড়া খুঁজতে গিয়ে
শুধু পা জোড়ার ম্যাজিক তুলে ধরো না
ঘন ফু দিয়ে বুকের একত্রিশের পর বত্রিশ
পার্টি খুলছি
আমলকিতে ঐ ছিল জোড়া শালিখের মুহুর্মুহু

আঙুলে পুজিঁতো সামান্য মহুয়া পাতা
ঝুঁকির অবশেষ
জলের মুখ তুলে ধরো আবিষ্কার
আর গাছের স্টেপগুলো সারি সারি
শাখার ফাঁকে ফাঁকে তার বিবাহ কাঁদছে
পুরুষ উঠোনকে ঘসে মেজে তবু
বাঁশি জয় পাখি উড়ে যাবে

দৃষ্টিজয় সব জানালা হবে ঘোরের ভোরের
হয়তো হাতে বসা অক্ষর বলবে
প্রকৃতি নাভি মধু লেখার হাত দাও
জন্ম পাল্কিতে জগৎ ছুটছে
অনেক বাঁধন কুমোরের পণীরের
কোমর থেকে উঠে আসা তালপাখা
আর না বলো না

অন্ধ অনুমান

সুতোর অনুমানে বুঝি সমস্ত সুস্থতা
হাওয়া তার চোখের লেখ্যভাষা
পাখি তোমার আকাশের কাজ শেষ হলো
মাটির ডানা ঝাপটা বুক ঝাপটা বুঝতে পারি
বুঝতে পারি ক্রোধ ও মিলিত স্নেহ সব
আশেপাশে ঘুরে বেড়ানো তোতাপুরি
চালতাফুল
একজন অন্যজনে না দেখা তৃতীয় চতুর্থবার
গুনলে ফুরোবে না সেই ফুটন্ত ডাক
নিরাময় গণ্ডগ্রাম তবু হলো না ধ্রুবতারা
যা গড়িয়ে যায় আর শুনি কার চরণধ্বনিরে

আজ ভালো রাখার ঘর সকাল সন্ধ্যার
বিষয়বস্তু
কিছু কিছু ছুঁয়ে দেখার নিরিবিলি হাত
ভদ্রাসন থেকে আসে পাশের থেকে
সরে আরো গভীরে
কুয়োর জলের নিয়ত বারণ ভরে দাও
নিজের দুধ ভরা কত কঠিন কাজ জেনেও

Facebook Comments

Posted in: April 2020, Poetry

Tagged as: , ,

Leave a Reply