সমর সুর-এর কবিতা

fail

ধামার

নিকোটিনের ধোয়ায় সন্ধ্যা নামে
শুরু হল মেঘের মহড়া, চাঁদ ঢেকে আছে
রমনীর বোরখার আড়ালে।
নিয়ে যাও গোলাপ ফিরিয়ে
জরায়ুর ভিতরে জমে থাকা গাঢ় অন্ধকারের মতো রাত্রি নামে
পরিত্যক্ত রজনীর ঘ্রাণে ভরে আছে চারপাশ।
আমি আর কিছুই শুনতে চাইনা
এখন শবের পাশে বসে আমি শুধুই শুনবো মঈন ঊদ্দিন ডাগর।
ধামারের বিস্তারে ধীরে ধীরে মর্গ থেকে জেগে উঠলে শব
শুরু হবে আমাদের গল্প, লোকগাথা, স্মৃতিচারন..
মগ্নতা ভেঙ্গে বিশুদ্ধ স্বরের থেকে পুনরায়
ভোর নামে ফিরে যায় শব।



পুতুল খেলা

সুতো ছিঁড়ে পড়ে যায় কাঠের পুতুল
হেসে ওঠেন দর্শক।
বিভ্রান্ত ঈশ্বর, এদৃশ্যে সুতোয় ঝুলে থাকে সীতা।
সাময়িক বিশ্রামের পর শুরু হয় খেলা।
পুনরায় সুতো ছিঁড়ে পড়ে যায় রাম
শূণ্য প্রেক্ষাগৃহ
পুতুল সাম্রজ্য ঘিরে কাঁদেন ঈশ্বর
ভেঙ্গে যায় অহংকার, হাতের কৌশল, যুদ্ধ,
গান, অভিষেক….
ভেঙ্গে যাওয়া কাঠের পুতুল বসে বসে জোড়া দেন
লৌকিক ঈশ্বর।
তবুও বারবার ছিঁড়ে পড়ে যায় কাঠের পুতুল
আর হেসে ওঠে মৃত নগরীর মানুষ।

Facebook Comments

Posted in: July 2020, POETRY

Tagged as: , ,

Leave a Reply