চৈতালী চট্টোপাধ্যায়-এর কবিতা

fail

জন্মদিনের চিঠি

তুমি আমার মনখারাপে জল ঢালবে, শ্রাবণমাস?
যেমন লোকে ঠাকুরপুজো করে!
যেমন ওরা রাস্তাঘাটে খোলা কলে পাখির মতো স্নান সারে!
ট্রেনের নীচে গলা দেব।
জানলা থেকে লাফ মারবো।
বিষ চাটবো।
কী যেন সব মৃত্যুমুখি অনুষঙ্গ…
এই মুহূর্তে মনে পড়ছে না।
তোমার সঙ্গে ভিজতে ভিজতে
পুরনো কথা ভুলতে ভুলতে
রতিসুখে গলেই যাব!
তুমি আমার ভরপুর আশ্বাস

নাম নেই এমন কবিতা

খুঁচিয়ে খুঁচিয়ে রক্ত বার করি
ভিক্ষা পাব বলে।
রঙ্গ তামাশা দেখে সমাজ-সংসার।
হেসে ফেলে পথে পড়ে-থাকা মেঘের ছায়ারা।
বুনোফুল মাটিতে খড়মড়ে হয়ে ওঠে।
গাছপালা নুয়ে আছে,যেন দেখছে না কিছু, এইভাবে।
যাওয়াই হয়নি ট্রামরাস্তা অবধি–
গলির মোড়ে আমি ঘ্যানঘ্যানে নকশা তুলছি, গানের!
কী চাইছি,তত বড় নয়,যতটুকু এ’ বৃষ্টিকাল,
আর কুসুম-কুসুম এই শরীরের স্বর

Facebook Comments

Leave a Reply